শিরোনাম :
‘ভূঞাপুর রিপোর্টার্স ইউনিটি’র নতুন কমিটি আত্মপ্রকাশ! ভূঞাপুরে মালা হত্যায় জড়িতদের ফাঁসির দাবিতে মানববন্ধন ভূঞাপুরে ৮৭০ পিস ইয়াবাসহ মাদক ব্যবসায়ী আটক! ভূঞাপুরে মর্মান্তিক মটরসাইকেল দুর্ঘটনায় নিহত ১, আহত ৩ ভূঞাপুরে উপ-প্রকৌশলী মিরাজুলের বিরুদ্ধে অনিয়ম, দুর্নীতি ও ঘুষের অভিযোগ ভূঞাপুরে ঐতিহ্যবাহী বাউল গানের আসর অনুষ্ঠিত “যখন ইচ্ছে তখন অফিসে আসবো”-ভূঞাপুর খাদ্য নিয়ন্ত্রক কর্মকর্তা নদী ভাঙ্গনে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের উন্মুক্ত তালিকা করলেন চেয়ারম্যান দিদারুল আলম খান মাহবুব ভূঞাপুরে মতিন সরকারের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশ ভূঞাপুরে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে বনিক সমিতির মিলাদ-দোয়া ও কাঙ্গালীভোজ!

কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে পদ্মা নদীর পানিতে দক্ষিণ অঞ্চল প্লাবিত হওয়ার আশঙ্কা

  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ১৯ আগস্ট, ২০২১
  • ২৬৫ দেখেছেন

কুষ্টিয়া দৌলতপুরে পদ্মা নদীতে অস্বাভাবিক পানি বৃদ্ধির ব্লকের বাঁধের উপর দিয়ে দক্ষিণ অঞ্চল প্লাবিত হওয়া আশঙ্কা

আছানুল হক, কুষ্টিয়া দৌলতপুরঃ

কুষ্টিয়া দৌলতপুরে পদ্মা নদীতে অস্বাভাবিক পানি বৃদ্ধির ফলে কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার চরাঞ্চলের বিপুলসংখ্যক মানুষ পানিবন্দি হয়ে পড়েছে।উপজেলার রামকৃষ্ণপুর ও  চিলমারী ইউনিয়নের অধিকাংশ  বাড়িতে পানি ঢুকেছে এবং ফিলিপনগর ইউনিয়নে গ্রাম রক্ষা বাধের মাত্র ৩ থেকে ৪ ইঞ্চি নিচে পানি। আর একটু পানি বৃদ্ধি পেলে দক্ষিণ অঞ্চল প্লাবিত হবে বলে আশঙ্কা করছে এলাকাবাসী । আর বাধের  দক্ষিণ অঞ্চল প্লাবিত হলে উপজেলার বেশ কিছু অঞ্চল প্লাবিত হবে।

 

এ বিষয়ে চরবাসী জানান, এ বছর  বন্যার পানি বৃদ্ধি পেয়েছে হঠাৎ করে। যার ফলে চর অঞ্চলের ফসল ধান পাট অধিকাংশ পানির নিচে তলিয়ে গেছে। তারা আর জানান, প্রতি বছব পানি বৃদ্ধি হয় ধিরে ধিরে ফলে আমরা ফসল ও বাড়ি ঘরের জিনিস পত্রর তুলে  অন্যত্র সরিয়ে নিতে পারি কিন্তু এবার তা না পারাতে  ব্যাপক ক্ষতি হচ্ছে ধান পাট সহ অন্যান্য ফসলের    পানির নিচে তলিয়ে গেছে বাড়ি ঘর সহ নিত্য ব্যবহার্য জিনিসপত্র ।

এ বিষয়ে ফিলিপনগর ইউনিয়ন  চেয়ারম্যান ও স্থানীয় নেতারা জানান,  যে ভাবে বন্যার পানি বৃদ্ধি পাচ্ছে তাতে  অতি তাড়াতাড়ি কর্তৃপক্ষ ব্যবস্থা না নিলে  বন্যা নিয়ন্ত্রণের বাহিরে চলে যাবে।

আর ফিলিপনগর ইউনিয়নে যে এলাকার রক্ষার্থে ব্লক দিয়ে যে শত কোটি টাকার  বাঁধ তৈরি করেছে সরকার   সেই বাঁধ ক্ষতিগ্রস্ত হবে। আর একটু পারি বৃদ্ধি পেলে বাঁধ পেরিয়ে দক্ষিণ অঞ্চল প্লাবিত হবে। তাই আমাদের দাবি অতি দ্রত কর্তৃপক্ষ ব্যবস্থা গ্রহন করবে।

এ ব্যাপারে দৌলতপুর উপজেলা নির্বাহি কর্মকর্তা শারমিন আক্তার জানান, মঙ্গলবার সকালে চর এলাকার বিভিন্ন ইউনিয়ন এর বন্যার পানি ঢোকার খবর পেয়ে  উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তাসহ একটি টিম দ্রুত এলাকায় পাঠিয়ে সার্বিক পরিস্থিতি পর্যালোচনা করা হয়েছে  এবং উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে প্রয়োজনীয় সকল ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে ।

JN-24/2021  যমুনা নিউজ ২৪

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো সংবাদ
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি